মংডু রোহিঙাদের গবাদি পশূর নিরাপত্তা নেই

মংডূ,আরাকান।দক্ষিন মংডূর একজন ব্যবসায়ী জানান উত্তর আরাকানে রোহিঙাদের গবাদি পশূর কোন নিরাপত্তা
নেই।”নাতালা গ্রামবাসীরা রোহিঙাদের গবাদিপশু দখল করে নিচ্ছে যখন তারা জঙলে ও গ্রামে চারণ করছিল।”
উ দং গ্রামে নতুন আসা একদল নাতালা গ্রামবাসী গত ১৯ এপ্রিল বিকালে ১২টি গরু শস্যক্ষেত থেকে তুলে নেয়,
গরুগুলোর মালিকের মাঝে শুক্কুর(৪০),আলি আহমেদ(৩৫) ও লাল মিয়া,যাদের প্রত্যেকের বাড়ি মংডুর আলি
থান ক এর খোজা বিল  গ্রামে বলে জানা গিয়েছে।ঘটনার পর একজন রাখাল গ্রামে গিয়ে মালিকদের
উক্ত ঘটনা সম্বন্ধে অভিহিত করে,এবং মালিকরা গ্রাম প্রশাসককে এই ব্যাপারে অভিহিত করলে নাতালা গ্রামে
যেতে বলে,সেখানে গবাদিপশু প্রতি ১০০০০০ ক্যত করে দাবি করে নাতালা গ্রামবাসীরা ,পরে আলোচনা
করে ৬০০০০ ক্যত করে দিয়ে গরুগুলো ছেড়ে দেওয়া হয়।
মেজর রে বিন তিং যিনি ৩৫২ নম্বর ব্যাটেলিয়ন এর দ্বায়িত্ব পেয়েছেন দাঙা নিরসনের জন্য,যা গত বছর জুন এর
আট তারিখে  রোহিঙা ও রাখাইনদের মাঝে হয়।তিনি এছাড়া রোহিঙ্গাদের থেকে অর্থ আদায় করছে,এবং এছাড়া
পাচার করে তিনি ধনী ব্যক্তিতে পরিনত হয়েছেন।
রোহিঙ্গা গ্রামবাসীদের সাথে খারাপ ব্যবহার করছে নিরাপত্তা বাহিনীরা,তারা নিজেদের জীবনযাপন করতে পারছে
না,”বলে জানান একজন তরুন।

Leave a Reply