ইউএন প্রতিনিধি বিজয় নাম্বিয়ার রোহিঙাদের সাথে দেখা করেননি

মংডূ,আরাকান।ইউএন প্রতিনিধি বিজয় নাম্বিয়ার গত ১৬-২০ ডিসেম্বর ২০১২ বার্মিজ
সরকারের নিমন্ত্রেন আরাকান রাজ্য পরিদর্শন করেন কিন্তু তিনি রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শন করেন নি।
“মংডুতে একটি মাত্র রোহিঙা আইডিপি ক্যাম্প আছে যা কন তান কক গ্রামে স্থাপন করা হয়েছিল
যারা গত জুন রতিদং থেকে পালিয়ে এসেছিল,বাকিদের কতৃপক্ষ চিনতে অস্বীকৃতি জানিয়েছে।”
ইউএন প্রতিনিধিদল কেবল নাতালা ক্যম্প পরিদর্শন করেন মাওরা ওয়াদ্দি গ্রামে অবস্থিত যা,কিন্তু
তারা কোন রোহিঙ্গা উদ্ভাস্তুদের সাথে দেখা করেন নি,যাদের কোন খাদ্য,আশ্রয় বাসস্থান নেই।
অনেক দরিদ্র রাখাইনকে ইউএন প্রতিনিধিদলকে দেখানোর জন্য মংডূ-আলি তান ক মহাসড়কে
আনা হয় তাবুতে পরে তিনি চলে গেলে তারা যার যার ঘরে ফেরত যায়।
মংডু আর্ন্তজাতিক সম্প্রদায়কে  কেবল রাখাইন ও নাতালা গ্রামবাসীদের দেখানোর জন্য এনেছে
কিন্তু রোহিঙা উদ্ভাস্তুদের সাথে আর্ন্তজাতিক সম্প্রদায়ের কোন দেখা হয় নি।
মিঃ নাম্বিয়ার দাঙায় ক্ষতিগ্রস্থ কয়েকেজন এর সাথে দেখা করতে সর্মথ হন,এবং তাদের সাথে তাদের
সমস্যা নিয়ে কথা বলেন।
“উক্ত পরিদর্শন বিশেষ প্রতিনিধিকে উভয় সম্প্রদায়ের সাম্প্রতিক অবস্থা সম্পর্কে ওয়াকিফ হতে সাহায্য করে এবং

তিনি উক্ত সমস্যা সমাধানের জন্য দ্বায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রীর সাথে আলোচনা করেন বলে জানায় ইয়াঙ্গুন
এর ইউএন তথ্যকেন্দ্র।
বিজয় নাম্বিয়ার গত ১৬ থেকে ২০ ডিসেম্বর বার্মাতে  যান এবং মিয়ানমার পিস সাপোর্ট গ্রুপ এর সাথে
আলোচনা করেন এছাড়া অভিবাসন ও জনসংখ্যা বিষয়ক মন্ত্রী ইউ কিন ই এর সাথে আরাকান পরিসর্শ্ন করেন।
গত মাসে প্রেসিডেন্ট থিন সেন জাতিসংঘ মহাসচিব বান কি মুন কে একটি চিঠিতে বলেন যে তার সরকার
সমস্যা সমাধানে বদ্ধ পরিকর এবং রাজনৈতিক স্থিতিশীলতা আনতে প্রস্তুত।
এছাড়া তারা জন্ম নিবন্ধন,কার্যানুমতি ও চলাফেরার অনুমতিপত্র প্রধান করবে সবার জন্য আর্ন্তজাতিক
রীতি অনুযায়ী।

Leave a Reply