জুন ৩০ এর সর্বশেষ সংবাদ

মংডূ
একলাস(২২),পিতাঃসায়েদ আহমেদ ,গত ১৬ জুন মতিপাড়া থেকে গ্রেফতার হন যা নাসাকা ৬ এর অর্ন্তভুক্ত,তাকে নাসাকা জাম্বানা আউটপোস্টে গ্রেফতার
করা হয়,গ্রামবাসীরা গত ২৮ জুন মাঠে তার লাশ দেখতে পান এবং তা ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়,কিন্তু ২৯ তারিখ তা ফেরত পাঠানো হয় এবং
তা কবর দেওয়া হয়।
গত ২৩ জুন ৬ জন রোহিঙ্গা গ্রামবাসীকে মংলা গি থেকে গ্রেফতার করা হয়,এছাড়া আরো ৩ জনকে ছেড়ে দেওয়া হয় এবং তিনজনকে নাসাকা ক্যাম্পে আনা হয়,বদিউল ইসলাম এর পুত্র মো নুরকে হত্যা করা হয়,বাকি দুজনের ভাগ্য জানা যায়নি।
এছাড়া আরো ৫ জনকে ৬ নং নাসাকা এরিয়া থেকে গত ২২ থেকে ২৬ জুন গ্রেফতার করা হয়।
তাদের মধ্যে ওসমান(২৫) পিতা ফজল আহমেদ,ইউসুফ(১৬) পিতা নুর মোহাম্মদ,জোহর(১৭) পিতাঃমোহাম্মদ সিদ্দিক,করিম উল্লাহ(১৮) পিতাঃহামিদ হাসান,জিয়াউর রহমান(১৮) পিতা বদি আলম ও হাবিব উল্লাহ(৪৫) পিতাঃনিজাম।
তং মং চ এর নেতৃত্বে এক দল রসাখাইন গত ৩০ জুন রোহিঙাদের আক্রমন করে,যাদের মধ্যে একজন মহিলাও ছিলেন,এছাড়া একজন রিকশাওয়ালাও
ছিলেন,তাদের মাথা,পিঠ ও হাত ও পাতে আঘাত করা হয়।
যেহেতু সেখানে কোন গনমাধ্যমের প্রবেশাধিকার নেই,তাই সঠিক হতাহতের সংখ্যা জানা যায়নি।
সম্প্রতি হওয়া এই সংঘর্ষে কতৃপক্ষের ভূমিকা পক্ষপাত মূলক,নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিস এর দাম বেড়ে গিয়েছে ,সাধারন মানুষ অনেক কষ্টের সাথে দিন কাটাচ্ছে,বাংলাদেশ এই সমস্যা নিরসনে গুরুত্বপূর্ন ভূমিকা রাখতে পারত কিন্তু তারা তা করছে না।

Leave a Reply